• , |
  • ঢাকা, বাংলাদেশ ।
সর্বশেষ নিউজ
* জাতীয় ঈদগাহে প্রধান জামাত অনুষ্ঠিত * আগামীকাল পবিত্র ঈদুল আজহা * সৌদি আরবে জর্ডান ও ইরানের ১৯ হজযাত্রীর মৃত্যু * শুভেচ্ছা * ফ্রিজে গরুর মাংস পাওয়ায় মধ্যপ্রদেশে ১১ মুসলিমের বাড়ি গুঁড়িয়ে দিল পুলিশ * সেন্টমার্টিন পরিস্থিতি নিয়ে ছাত্রশিবিরের উদ্বেগ প্রকাশ * সীতাকুণ্ডে গঙ্গাস্নানে নেমে পদদলিত হয়ে দুই শিশুর মৃত্যু * মৌসুমের শুরুতেই দুই বিভাগে ভারী বৃষ্টি ও বন্যার শঙ্কা * গাজার দক্ষিণে কৌশলগত যুদ্ধবিরতি ইসরাইলের * সোনালী ব্যাংককে ১ কোটি রুপি জরিমানা ভারতের কেন্দ্রীয় ব্যাংকের

জনগণ পাশে থাকলে ৩০০ আসনে প্রার্থী দিতে চায় ডেভেলপমেন্ট পার্টি

news-details

বাংলাদেশ ডেভেলপমেন্ট পার্টর আলোচনা সভা, ছবি: নিজস্ব


জনগণ পাশে থাকলে আগামী নির্বাচনে ৩০০ আসনেই প্রার্থী মনোনয়ন দেওয়ার প্রত্যাশা ব্যক্ত করে বাংলাদেশ ডেভেলপমেন্ট পার্টির চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট এ কে এম আনোয়ারুল ইসলাম চান বলেছেন, আমরা কেবলই সাঁতার শিখছি, নদী পার হওয়ার শক্তি আমাদের তৈরি হয়নি। তবে জণগণ যদি পাশে থাকে তাহলে আমরা আগামী নির্বাচনে ৩০০ আসনেই মনোনয়ন দিতে চাই ।

বুধবার (১ মার্চ) নয়া পল্টনে দলটির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে প্রথম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে আয়োজিত আলোচনা সভায় তিনি একথা বলেন।

এসময় তিনি স্বাবলম্বী বাংলাদেশ গড়ার প্রত্যয় ব্যক্ত করে ২৬ দফা কর্মসূচি ঘোষণা করেন।

ঢাকা মহানগর দক্ষিণের সভাপতি মনির উদ্দিন মনির সভাপতিত্বে সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন পার্টির সেক্রেটারি জেনারেল মুহাম্মদ নিজামুল হক, ভাইস-চেয়ারম্যান গাযী আনোয়ারুল হক, যুগ্ম সম্পাদক তাসবীর লস্কর, ট্রেজারার রিয়াদ হোসেন, জাতীয় স্থায়ী কমিটির সদস্য ইঞ্জিনিয়ার শহিদুল আলম ভূঁইয়া, আবু নাসের নুর নবী জনি, মহানগর উত্তরের সভাপতি আনোয়ার হোসেন সহ অন্যান্য নেতৃবৃন্দ।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে অ্যাডভোকেট আনোয়ারুল ইসলাম চান বলেন, বাংলাদেশ ডেভেলপমেন্ট পার্টি কোনো ব্যক্তির, গোষ্ঠীর বা রাজনৈতিক দলের সমালোচনা না করে, সকলের প্রচেষ্টা নিয়ে, সকল দলের সাথে সুসম্পর্ক রেখে বাংলাদেশকে নিয়ে এগোতে চায়।

তিনি বলেন, অনেকে বলছে, আমরা কেন সামনে আসছি না। আমরা কেন রাজপথে আসছি না। আমি বলতে চাই, আমরা বাংলাদেশের নতুন ধারার রাজনীতি প্রবর্তন করতে চাই। আমরা কাউকে আঘাত করে নিজের সুবিধা নিতে চাই না। কাউকে খারাপ বলে অথবা কাউকে প্রশংসা করে এদেশের কল্যাণ করা কখনো সম্ভব নয়। তাই আমরা স্লোগান ঠিক করেছি- এসো গড়ি আমার দেশ, স্বাবলম্বী বাংলাদেশ।

তিনি আরও বলেন, এই দেশ পরিচালনার জন্য মানুষের যে চাহিদা, তাদের যে আশা ডেভেলপমেন্ট পার্টি তা পূরণ করবে। পার্টির নিবন্ধনের মাধ্যমে অল্প সময়ের মধ্যেই এ দেশের মানুষকে ঐক্যবদ্ধ করে একটা বিপ্লব সাধন করবে। সেই বিপ্লবে দেশের সকল মানুষ ঐক্যবদ্ধ হয়ে আমাদের পার্টির পতাকাতলে আসবে ইনশাআল্লাহ।

প্রধান বক্তার বক্তব্যে দলটির সেক্রেটারি জেনারেল মুহাম্মদ নিজামুল হক বলেন, ঐক্য ইনসাফ অধিকার প্রতিষ্ঠার অঙ্গীকার নিয়ে ডেভেলপমেন্ট পার্টি প্রতিষ্ঠা হয়েছে। আজকে যদি আমরা বাংলাদেশকে লক্ষ্য করি, ঐক্য কিন্তু প্রতিষ্ঠিত হয়নি। জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ঐক্য প্রতিষ্ঠার জন্য অনেক চেষ্টা করেছেন। অনেক কার্যক্রম হাতে নিয়েছিলেন। কিন্তু ৭৫ এর সেই ঘটনায় সব ভুলুণ্ঠিত হয়েছে। দেশের সকল রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দ অনেক চেষ্টা করেছেন বাস্তবে সেই ঐক্য প্রতিষ্ঠিত হয়নি। 

তিনি বলেন, আমরা যদি ইনসাফের কথা বলি। ইনসাফ যতটুকু প্রয়োজন তা কিন্তু নেই। আজকে আমরা দেখতে পাচ্ছি নিচ আর দশ তলার পার্থক্য। পার্থক্য দিন দিন বেড়েই চলছে। আজকে ইনসাফ একটি সুযোগ সুবিধাভোগী শ্রেণির কাছে সীমাবদ্ধ হয়ে গেছে। যত ধরনের সুযোগ সুবিধা আছে একটি শ্রেণির হাতে সব চলে গেছে। অথচ দেশের একটি বড় শ্রেণি, বড় গোষ্ঠী, দেশের সাধারণ মানুষ ইনসাফ থেকে বঞ্চিত হচ্ছে। সুতরাং বাংলাদেশের জন্য ইনসাফ একটি প্রাসঙ্গিক বিষয়।

নিজামুল হক বলেন, দেশের কল্যাণে এদেশের প্রত্যেকটি মানুষ আমাদের দরকার। এ দেশের প্রত্যেকটি রাজনৈতিক দল আমাদের দরকার। সরকারি দল থেকে শুরু করে যতগুলো দল আছে প্রত্যেকের সাথে আমরা আমাদের ইনসাফ অধিকার নিয়ে কাজ করব। তাদেরকে সাথে নিয়ে দেশকে আগামী দিনে কল্যাণময় রাষ্ট্র করার জন্য আমরা আমাদের প্রচেষ্টা চালাবো।

তিনি আরও বলেন, সংখ্যালঘু কোন একটি শ্রেণি, কোনো একটি মহল, কোনো একটি দল, কোনো একটি পরিমণ্ডলে সীমাবদ্ধ থেকে আমরা আমাদের কাজ করছি না। প্রত্যেকটি রাজনৈতিক দল প্রত্যেকটি সচেতন মানুষকে নিয়ে আমরা আমাদের এই কর্মসূচি বাস্তবায়নের জন্য ভূমিকা পালন করব ইনশাল্লাহ।

উল্লেখ্য, ঐক্য ইনসাফ অধিকার, বিডিপির অঙ্গীকার, এসো গড়ি আমার দেশ, স্বাবলম্বী বাংলাদেশ। এই স্লোগান নিয়ে ২০২২ সালের ১ মার্চ বাংলাদেশ ডেভেলপমেন্ট পার্টর  আনুষ্ঠানিক আত্মপ্রকাশ হয়।


নিজস্ব প্রতিবেদক :

মন্তব্য করুন

1 মন্তব্য